শুধু করোনা নয় যে কোন বাঁধা উপেক্ষা করে দিন রাত কাজ করে যেতে চাই-মশিউর রহমান।

রাকিব হাসান অনিক,চট্টগ্রামঃ বিশ্বে এক মহামারি আকার ধারণ করেছে এ করোনা ভাইরাস।বিশ্ব আজ থমকে গিছে করোনার কাছে করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ গোটা বিশ্বে বেড়েই চলেছে। যার থাবা এসে পড়েছে বাংলাদেশেও।বাংলাদেশেও সংক্রমণ বাড়ছে।
করোনা উপেক্ষা করে দিন রাত বন্দর বিভাগে নিরলস কাজ করে যাচ্ছেন চট্টগ্রাম ট্রাফিক বন্দর বিভাগের টিআই (প্রশাসন) মশিউর রহমান।
করোনা আতঙ্কে সাধারণ মানুষকে যখন নিরাপদে থাকার পরামর্শ দেয়া হচ্ছে তখন মারাত্মক ঝুঁকিতে রয়েছে, পুলিশ ভয় আছে, আছে আতঙ্কও। কিন্তু কর্তব্যটা যে মুখ্য, আর তাই করোনা আতঙ্কে সাধারণ মানুষকে যখন নিরাপদে থাকার পরামর্শ দেয়া হচ্ছে, ঠিক তখন দেশ আর দশের প্রয়োজনে নিজেদেরকে সঁপে দিচ্ছেন আমাদের নিরাপত্তা কর্মীরা।তেমনি নিরলস কাজ করে যাচ্ছেন চট্টগ্রাম ট্রাফিক বন্দর বিভাগের টিআই (প্রশাসন) মশিউর রহমান ।
চট্টগ্রাম ট্রাফিক বন্দর বিভাগের টিআই (প্রশাসন) মশিউর রহমান নিজ কর্মদক্ষতাগুণে জনবান্ধব টিআই হিসেবে খ্যাতি লাভ করেছেন সর্ব মহলে। ট্রাফিক বন্দর বিভাগের টি আই (প্রশাসন) হিসেবে যোগদানের এক মাসের মধ্যেই ট্রাফিক বন্দর বিভাগের আওতাধীন এলাকা সমূহের নিজের সুদীর্ঘ অভিজ্ঞতাকে কাজে লাগিয়ে যুগান্তকারী ও সময়োপযোগী পদক্ষেপ গ্রহণ করে ট্রাফিক ব্যবস্থাকে অনন্য উচ্চতায় নিয়ে গিয়েছেন।
সংশ্লিষ্ট মহলের মতে, টি আই মশিউরের সবচেয়ে বড় সাফল্য হচ্ছে পতেঙ্গা টি আই থাকাকালীন বিমান বন্দর অভিমুখী ফ্লাইওভার নির্মানের সময় সাধারন জনগনকে যানজটমুক্ত রাজপথ উপহার দিয়ে নির্বিঘে তাদের নিজস্ব গন্তব্যস্থলে পৌছাতে সহায়তা করা কারণ বর্ষাকালে ফ্লাইওভার নির্মাণকালীন সময়ে বিমান বন্দরের অভিমুখী বিদেশী ও হজযাত্রীসহ সাধারণ জনগনকে নিজ গন্তব্যস্থলে পৌছাতে প্রাথমিক অবস্থায় বেশ বেগ পেতে হয়েছিল।
কিন্তু টি আই পতেঙ্গার দায়িত্ব গ্রহণ করেই তার ২৮ বছরের অভিজ্ঞতাকে কাজে লাগিয়ে কঠিন পরিস্থিতি মোকাবেলা করে সুশৃঙ্খলভাবে যানবাহন নিয়ন্ত্রণ করে জনগনকে গন্তব্যস্থলে পৌছাতে ব্যপক সহায়তা করেছিল। সাফল্যের ধারাবাহিকতা তিনি অব্যাহত রেখেছেন বন্দর বিভাগের টিআই (প্রশাসন) হিসেবেও।
নিজ সাফল্যের প্রসঙ্গে জানতে চাইলে বন্দর বিভাগের টিআই(প্রশাসন) মশিউর বলেন, “ সফলতা কিংবা বিফলতা পরিমাপের মাপকাঠি হচ্ছে সাধারণ জনগন। তবে আমার উপর যখনই যে দায়িত্ব প্রদান করা হয়েছে আমি তা নিষ্ঠা ও একাগ্রতার সাথে পালন করার চেষ্টা করেছি।
রাষ্ট্র অর্পিত যে কোন গুরু দায়িত্ব পালন করতে আমার নিষ্ঠা ও একাগ্রতার কমতি হবে না।” জনবান্ধব টিআই হিসেবে খ্যাতি লাভ করা বন্দর বিভাগের টিআই(প্রশাসন) মশিউর রহমান তার প্রাপ্ত খ্যাতি তার নিজ কর্মদক্ষতা গুণে ধরে রাখবেন এই প্রত্যাশা সকলের।

Published by Rakib Hasan

এটি একটি অনলাইন ভিত্তিক বাংলাদেশের নিউজ র্পোটাল।

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out /  Change )

Google photo

You are commenting using your Google account. Log Out /  Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out /  Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out /  Change )

Connecting to %s

Create your website at WordPress.com
Get started
%d bloggers like this: